Goodman Travels

ডেঙ্গুর কাছে হেরে গেল পাবনার বিপাশা

ডেস্ক রিপোর্ট: পাবনার সাঁথিয়া উপজেলায় ডেঙ্গুতে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। বিপাশা পাল (১২) নামে ৬ষ্ঠ শ্রেণির এক ছাত্রী বৃহস্পতিবার সকালে মারা গেছে।

বিপাশা পাল উপজেলার গাঙ্গহাটি গ্রামের আনন্দ পালের মেয়ে এবং মিয়াপুর হাজি জসীম উদ্দিন হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের ৬ষ্ঠ শ্রেণির ছাত্রী ছিল।

তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন মিয়াপুর হাজি জসীম উদ্দিন হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের বিদ্যালয় শাখার সহকারী প্রধান শিক্ষক আবু সাঈদ।

স্কুলছাত্রীর পরিবারের বরাত দিয়ে শিক্ষক আবু সাঈদ বলেন, বিপাশা মাসখানেক আগে টাইফয়েড জ্বরে আক্রান্ত হয়। এরপর কিছুটা সুস্থ হওয়ার পর দুই সপ্তাহ আগে আবার জ্বরে আক্রান্ত হয়। এরপর তাকে পাবনা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে পরীক্ষায় তার ডেঙ্গু ধরা পড়ে। বৃহস্পতিবার তার মৃত্যু হয়েছে।

বিপাশা পালের বাবা আনন্দ পাল বলেন, হাসপাতালে সপ্তাহখানেক চিকিৎসা নেয়ার পর বেশ সুস্থ হয়ে উঠলে তাকে চিকিৎসকরা ছাড়পত্র দেন। রোববার (১ সেপ্টেম্বর) তাকে বাড়ি নিয়ে আসা হয়। এরপর বৃহস্পতিবার সকালে আবার গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে গাঙ্গহাটি কিডনি ফাউন্ডেশন হাসপাতালে নেয়ার পথে সকাল সাড়ে ১০টার দিকে মৃত্যু হয়। বিগত কয়েক মাসে বিপাসা পাবনার বাইরে যায়নি। গ্রামের বাড়িতে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে মারা গেল মেয়েটি।

পাবনা সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) ডা. আকসাদ আল মাসুর আনন বলেন, আমাদের ধারণা ওই ছাত্রী সুস্থ হওয়ার পর দ্বিতীয়বার ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছে, এতে তার মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে স্কুলছাত্রীর মৃত্যুতে হাজি জসীম উদ্দিন হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজে শোকের ছায়া নেমে আসে। দুপুরে এ প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক- শিক্ষার্থীরা তাকে দেখতে ও স্বজনদের সান্ত্বনা দিতে তাদের বাড়ি যান।