Goodman Travels

মিলাদের তবারক খেয়ে পাবনায় স্কুলছাত্রীর মৃত্যু, হাসপাতালে ৪০ জন

পাবনা প্রতিনিধি: পাবনা সদর উপজেলার বলরামপুর গ্রামে মিলাদের খিচুরি খেয়ে সুখী আক্তার(১৫) নামের এক ৭ম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী আজ রোববার চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছে। এতে আহত হয়েছে অন্তত অর্ধশতাধিক। আশংকাজনক অবস্থায় আরো ২জন চিকিৎসাধীন রয়েছে।

নিহত সুখি খাতুন পাবনা সদর উপজেলার দোগাছী ইউনিয়নের বলরামপুর গ্রামের সেলিম শেখের মেয়ে ও শহরের আহমেদ রফিক উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্রী।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, গত শুক্রবার বলরামপুর গ্রামের মরহুম ঈমান আলী সরদারের মুত্যুবার্ষিকীর মিলাদ মাহফিলের খিচুরী খেয়ে শিশুসহ অর্ধ শতাধিক নারী-পুরুষ গুরুতর অসুস্থ হয়ে পাবনা সদর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি হয়। পরে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সুখী আক্তার(১৫) নামের এক ৭ম শ্রেণীর স্কুল ছাত্রী মারা যায়। অপর ২জনের অবস্থা আশংকাজনক রয়েছে।

অসুস্থ রিপন হোসেন জানান, শুক্রবার বিকেলে বলরামপুর গ্রামের তার বড় চাচা ঈমান আলীর মৃত্যু বার্ষিকীর মিলাদের তাবারক খাওয়ার পরপরই তারা অসুস্থ হয়ে পড়েন। ভর্তিকৃতরা হলেন, রিপন শেখ(৪৫) পিতা আলেক শেখ ,অনিষা(১২), লামিয়া(৭), দীপক সাহা(৫৯), রেশমী(৩০), লামিয়া(৫), রিপন(৪২), স্বপন(২৩), শারমিন(১৯), মকছেদ(২০), মানু (১৭), জিসান(৩০), মাহিন(১৩), আয়েশা(২৫), মেহরাব(১১), রোহান(৯), রাত্রি(১২), সাবিনা(৩০), রোহানা(৩৮), স্বপন(৪০), ছিয়াম(১০), ইয়াসমিন(২০), কাকলী(১৩), সুফিয়া(৪৫), লতা(২৫), সন্তু(২৮), মুসাব্বির(১৪), কামরুন্নাহার(৬০), সাজু(১৬), সুরুজ(৭০), মোমিন(৩৪), রোহান(৬) সহ ৪০ জন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

হাসপাতালের চিকিৎসক ডা: হাবিবুল ইসলাম জানান, খাদ্যে বিষক্রিয়ার কারনেই এরা অসুস্থ হয়েছেন বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

পাবনা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ ওবাইদুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, শিশুটির মৃত্যুর খবর পেয়েছি। পরবর্তীতে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।