Goodman Travels

মানুষ সুবিধামতো খারাপ দিনটাই মনে রাখে : রশিদ খান

স্পোর্টস ডেস্ক: বিশ্বকাপে আফগানিস্তানের হয়ে রশিদ খান অসাধারণ কিছু করবেন, এমন আশাই করেছিল দেশটির সমর্থকরা। কিন্তু সেই আশায় পানি ঢাললেন রশিদ নিজেই। বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত নিজের নামের প্রতি একেবারেই সুবিচার করতে পারেননি এই লেগ স্পিনার।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে গত ম্যাচে একপ্রকার তুলোধুনোর শিকার হন রশিদ। ওই ম্যাচে নয় ওভারে কোনো উইকেট না নিয়ে ১১০ রান দিয়ে বিশ্বকাপ ইতিহাসে সবচেয়ে বাজে বোলিং করেন এই স্পিনার। আর তাতেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে একের এক ট্রলের শিকার হচ্ছেন তিনি।

সমর্থকদের এমন আচরণে ক্ষুদ্ধ রশিদ খান। তার মতে, মানুষ শুধু খারাপ দিনটাই মনে রাখে, ভালো দিন মনে রাখে না। তবে এসব নিয়ে পরে থাকতে রাজি নন আফগান লেগস্পিনার।

রশিদ খান বলেন, ‘ওই ম্যাচ নিয়ে আমি খুব বেশি ভাবছি না। মানুষ ১০ দিনের ভালো পারফরম্যান্স ভুলে গিয়ে সুবিধামতো খারাপ একটি দিনই মনে রাখে। তারা এটা মনে রাখতে পছন্দ করে না যে, গত ১০ দিনে রশিদ খান কি করেছে। ওই ম্যাচের করা ভুলগুলোর উপর আমি কাজ করছি এবং আগামী ম্যাচে সেইগুলো কাটিয়ে উঠব।’

তিনি আরও বলেন, ‘সমালোচনা নিয়ে ভাবার কোন সময় নেই। বিষয়টাকে সোজা ভাবে নেয়া দরকার।’

বিশ্বকাপে টানা পাঁচ ম্যাচ হারের পর গুঞ্জন উঠেছে দলীয় কোন্দল চলছে আফগানিস্তান দলে। এমন কথাও শোনা যাচ্ছে, রশিদের সঙ্গে সম্পর্ক খুব একটা ভালো নয় অধিনায়ক গুলবাদিন নায়েবের। তবে এসব গুঞ্জন উড়িয়ে দিলেন রশিদ।

রশিদ বলেন, ‘না, আমি গুলবাদিনের জন্য খেলি নাকি আফগান ক্রিকেট বোর্ডের জন্য? আমি আফগানিস্তানের জন্যই খেলি। আমি মনে করি গুলবাদিন আর আমার সম্পর্কের মধ্যে কোন সমস্যা নেই। অধিনায়ক হিসবে তাকে আমি ততটাই সমর্থন করি যতটা আসগর আফগানকে করতাম। আসগরকে যদি আমি ৫০ ভাগ সমর্থন করি, তাহলে গুলবাদিন আমার কাছ থেকে ১০০ ভাগ সমর্থন পাচ্ছে।’